Home / চলতি খবর / ফেনীতে ডাঃ হায়দার ক্লিনিকে পরীক্ষার-নীরিক্ষা ও সেবার নামে প্রতারণার অভিযোগ

ফেনীতে ডাঃ হায়দার ক্লিনিকে পরীক্ষার-নীরিক্ষা ও সেবার নামে প্রতারণার অভিযোগ

দাগনভূঞা (ফেনী) সংবাদদাতা : ফেনী শহরের পশ্চিম ডাক্তার পাড়ায় অবস্থিত ডাঃ হায়দার ক্লিনিক (প্রাঃ) হাসপাতালে প্রতিনিয়ত রোগীরা প্রতারিত হচ্ছেন। এখানে দূরদূরান্ত থেকে শতশত রোগী এলেও সঠিক সেবা পাচ্ছে না। সেবার নামে অব্যাহতভাবে চলছে রমরমা ব্যাবসা। বাহির থেকে জঁমকালো আকর্ষণীয় হলে ও ভেতরটা সেবার নামে সাক্ষাৎ কসাইখানা মর্মে গুরুতরো অভিযোগ পাওয়া গেছে।
পাঁছগাছিয়া’র রোগী ভূক্তভোগী রেহানা আক্তার অভিযোগ করে জানান, গত ০৬-০৯-২০১৯ ইং তারিখে আমি স্তনের উপরিভাগে সৃষ্ট গুটির  ব্যাথা নিরাময়ে নোয়াখালীর আব্দুল মালেক উকিল মেডিকেল কলেজের সহকারী অধ্যাপক ডাঃ মোঃ মরফুদুল ইসলাম (মারফ) এর চেম্বারে যাই।   উনি আমাকে দ্রুত অপারেশন করার জন্য পরামর্শ দেন। সাথে সাথে ডাঃ হায়দার ক্লিনিক (প্রাঃ) হাসপাতালে ভর্তি করিয়ে দেন। রাত ৯ টায় আমার অপারেশন হবে বলে আমাকে কিছু পরীক্ষা-নীরিক্ষা করানো জন্য বলেন। আমি পরীক্ষা করানোর জন্য কাউন্টারে যোগাযোগ করলে তারা আমাকে CBC,SERUM CREATINE,HBSAG,ANTI HCV পরীক্ষাগুলো  ফেনীতে হয়না জানিয়ে বলে সেগুলো ঢাকা থেকে করাতে হবে।
আমি তাদের কথা বিশ্বাস করে ২০০০ হাজার টাকা বিল পরিশোধ করি। যথারীতি আমার অপারেশন হয় (আপারেশনের বিল ১৬৯০০টাকা পরিশোধ করি) এবং পরের দিন বাসায় চলে যাই এই ভাবে হাসপাতালে যাচ্ছি আর আসছি দীর্ঘ একমাস। ‍কিন্তু স্বাস্থগত কোন প্রকার উপকার পাচ্ছি না।”
 তিনি অভিযোগে আরো জানান, গত ১১/১০/২০১৯ ইং তারিখে আবার ডাঃ মোঃ মরফুুদুল ইসলামকে দেখালে উনি বলেন আপনাকে বলছিলাম ঢাকা থেকে পরীক্ষা গুলো করে আনবেন। আপনি ফেনী থেকে কেন পরীক্ষার গুলো করালেন? তখন আমি ডাঃ কে বলি আমিতো আপনাদের হসপিটালে পরীক্ষাগুলো করিয়েছি। আমি রোগী আমি কি জানি  আপনারা ঢাকার কথা বলে ফেনীতে এসব পরীক্ষা করাবেন। তিনি ” জানিনা” বলেই তার উত্তর শেষ করলেও  যে কারণে অপারেশন করানো হলো সেই সমস্যা ভালো হয়নি।এখন আমি খুব অসুস্থ্য হয়ে পড়েছি। এই ব্যাপারে আমি প্রতিকার দাবী করছি।
ডাঃ হায়দার ক্লিনিকের ম্যানেজার রাকিবের সাথে কথা হলে উনি বলেন আমাদের ঢাকায় যে লোক নমুনা নিয়ে যায় সে না আসাতে আমরা ফেনী থেকে পরীক্ষা করিয়েছি। প্রতিবেদক ম্যানেজারের কাছে প্রশ্ন করেন আপনাদের লোক নাই সেটি রোগীকে কেন বুঝতে হবে। রোগীকে আপনারা ঢাকার কথা বলছেন। ম্যানাজার উত্তরে বলেন এগুলো সমস্যা নেই। 
খোঁজ নিয়ে জানা যায়, প্রতিদিনই কেউনা কেউ এভাবে হয়রানির শিকার হচ্ছেন। সেবার নামে রোগীরা গলাকাটা প্রতারিত হচ্ছেন। এমনটি হতে থাকলে জনগন আসল নকল চেনা বড় দায় হবে বলে ক্ষোণ প্রকাশ করে আগত রোগীরা জানান এখনি যদি হাসপাতালটির বিরুদ্ধে কোন ব্যাবস্থা না নেয়া হলে  যেকোন সময়  মর্মান্তিক দূর্ঘটনার আশংকা রয়েছে।

 

About gssnews2

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*