Home / চলতি খবর / পীরগঞ্জে মাটিতে দেবে যাওয়া বিদ্যুতের খুঁটি থেকে রহস্যময় ধোঁয়া : উৎসুক জনতার ভীড়

পীরগঞ্জে মাটিতে দেবে যাওয়া বিদ্যুতের খুঁটি থেকে রহস্যময় ধোঁয়া : উৎসুক জনতার ভীড়

গোলাম রব্বানী (ঠাকুরগাঁও) প্রতিনিধিঃ ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জে হঠাৎ করে মাটির নিচে দেবে যাওয়া পল্লী বিদ্যুতের একটি সিমেন্টের খুঁটির গোড়া থেকে অবিরাম ধোঁয়া জাতীয় গ্যাস বের হচ্ছে। মাটির নিচে অর্ধেক দেবে যাওয়া খুঁটির গোড়া থেকে গ্যাস বের হওয়ার দৃশ্য দেখতে সকাল থেকে সেখানে ভীড় করছে উৎসুক জনতা। পল্লী বিদ্যুৎ কর্তৃপক্ষ বলছেন, হয়তো মাটির নিচে গ্যাস আছে। এ জন্যই ধোঁয়া বের হচ্ছে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, প্রবল বৃষ্টিপাতের কারণে উপজেলার ভেলাতৈড় গ্রামের পাঁকা রাস্তার পার্শ্বে পল্লী বিদ্যুৎ লাইনের একটি সিমেন্টের খুঁটি শনিবার ভোরে হঠাৎ করেই মাটির নিচে অর্ধেক ঢুকে যায় এবং ওই খুঁটির গোড়া থেকে গ্যাস জাতীয় ধোঁয়া বের হতে থাকে। সকালে এলাকার লোকজন রাস্তা দিয়ে চলাচলের সময় তা দেখতে পায়। পরে পল্লী বিদ্যুৎ কর্তৃপক্ষ বিষয়টি জানতে পেরে ওই খুঁটি পার্শ্বে নতুন একটি খুঁটি স্থাপন করে বিদ্যুৎ লাইন সরিয়ে নেন। তার পরেও দেবে যাওয়া খুঁটির গোড়া থেকে ধোঁয়া বের হতেই থাকে। বিষয়টি এলাকায় জানাজানি হলে সেখানে উৎসুক জনতার ঢল নামে। ভেলাতৈড় গ্রামের আব্দুল বাসেদ , রামীন,মহিদুল, আব্দুর রহিম কিরণ ও, বাপ্পীসহ অনেকেই জানান, গতশনিবার সকালে তারা দেখতে পান পল্লী বিদ্যুতের একটি খুঁটি হঠাৎ করেই মাটির নিচে অর্ধেকেরও বেশি অংশ ঢুকে গেছে এবং এর গোড়া থেকে ধোঁয়া জাতীয় গ্যাস বের হচ্ছে। এ দৃশ্য দেখতে দুপুরের পর সেখানে নানা বয়সের মানুষ ভীড় করছে। তাদের ধারণা, সেখানে মাটির নিচে গ্যাস অথবা কয়লার খনি রয়েছে। যে কারণে খুঁটিটি মাটিতে ঢুকে গেছে এবং সেখান থেকে ধোঁয়া বের হচ্ছে। সেখানে পানি ঢেলে দিলেও অবিরাম ধোঁয়া বের হতেই থাকে। ঠাকুরগাঁও পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির পীরগঞ্জ জোনাল অফিসের উপ-মহাব্যবস্থাপক শামীম খাঁন জানান, খবর পাওয়ার পর মাটির নিচে ঢুকে যাওয়া খুঁটি থেকে তারা বিদ্যুৎ লাইন অন্যত্র স্থানান্তর করেছেন। ধোঁয়া বের হওয়া প্রসঙ্গে তিনি বলেন, মাটির নিচে প্রাকৃতিক গ্যাস থাকতে পারে। সেজন্য হয়তো ধোঁয়া জাতীয় গ্যাস বের হচ্ছে। এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী অফিসার রেজাউল করিম জানান, বিষয়টি শোনার পর ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। বিদ্যুতের শর্ট সার্কিটের জন্য এ পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়েছে। এটা পরিবেশের উপর কোন প্রভাব ফেলবে না।

 

About gssnews2

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*