চট্টগ্রাম   বুধবার, ২৭ অক্টোবর ২০২১  

শিরোনাম

ডিএসসিসির ৫৯ নম্বর ওয়ার্ড জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা দোয়া ও ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ

ডিএসসিসির ৫৯ নম্বর ওয়ার্ড জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা দোয়া ও ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ

জিএসএসনিউজ ডেস্ক :    |    ০৭:৫৯ পিএম, ২০২১-০৮-৩০

ডিএসসিসির ৫৯ নম্বর ওয়ার্ড জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা দোয়া ও ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ

জসীম মেহেদী : স্বাধীনতার স্থপতি,জাতিরজনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান তাঁর পরিবারবর্গের ৪৬তম শাহাদাত বার্ষিকী জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা, দোয়া   হাজার অসহায় মানুষের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয় 

ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের ৫৯ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর কদমতলী থানা আওয়ামী লীগের প্রথম যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আকাশ কুমার ভৌমিকের সার্বিক তত্বাবধানে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট আফজাল হোসেন  


রোববার ওয়ার্ডের মেরাজনগর কমিউনিটি সেন্টারে অনুষ্ঠিত সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন- ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ¦ আবু আহমেদ মন্নাফী, সাধারণ সম্পাদক আলহাজ¦ মোঃ হুমায়ুন কবির, সহ-সভাপতি ডাক্তার দিলীপ কুমার রায়, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মোঃ মিরাজ হোসেন, আইন বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট মোঃ জগলুল কবির, সদস্য আলহাজ¦ মোঃ আবুল বাশার, এস এম সহিদুল ইসলাম মিলন, মোঃ আইয়ুব আলী খান, অ্যাডভোকেট আসমা আক্তার কেকা, কদমতলী থানা আওয়ামী লীগের অর্থবিষয়ক সম্পাদক হাজী মোঃ ফজলুল হক ফজু, শ্যামপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক মোঃ ওমর ফারুক, কদমতলী থানা ছাত্রলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোঃ জিহাদ মাতুব্বর প্রমুখ
অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট আফজাল হোসেন বলেন, জিয়াউর রহমান সেই খুনী এবং সে হত্যাকারী এটি কিন্ত আজকে পরিক্ষিত সত্য এই যে সত্য যারা খুন করেছে যারা খুনের ত্রেবাদাস, সেবাদাস সেই সকল অপশক্তি  খুনের কথা শিকার করবেনা এটাই সত্যি আজকে আমাদের প্রিয় নেত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা সেদিনের রক্তাক্ত স্মৃতি বহন নিয়ে আওয়ামী লীগের সকল নেতাকর্মীদের এবং পুরো বাংলাদেশের মানুষের অভিভাবক হিসেবে তিনি আজকের দায়িত্ব পালন করেছেন দীর্ঘ ৪০ বছর ধরে সুতরাং ৪০ বছরে যে বুকে আগুন নিয়ে তিনি আজকে দেশ পরিচালনা করছেন তিনি জানেন কারা কারা হত্যাকান্ড সংঘটিত করেছে হত্যাকান্ডের পিছনে কারা ছিল কারা ষড়যন্ত্র করেছিল, তিনি জানেন বলেই তিনি আজকে সেই সত্যটুকু উন্মোচন করছেন সেই সত্য কথাগুলো বলছেন বলেই আজকে বিএনপির কাটাঘায়ে তাদের সেই নুনের ছিটা লেগেছে এবং সেই কারণে তারা আজকে আমাদের নেত্রীর কথায় প্রতিবাদ করছে 

বিশেষ অতিথির ভার্চুয়াল বক্তব্যে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু আহমেদ মন্নাফী বলেন, বিএনপির মহাসচিব ফখরুল ইসলাম বলেছেন শেখ মুজিবুর রহমান, জিয়াউর রহমান শ্রদ্ধেয় নেতা আপনি ফখরুল ইসলামের মুখ দিয়ে বঙ্গবন্ধু আসেনা, জাতির জনক আপনার মুখ দিয়ে আসেনা আপনি কিভাবে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং জিয়াকে একসাথে করলেন ক্ষেতে আর আইলে কি এক সমান হয় আইলে আর ক্ষেতে এক সমান হয়না বঙ্গবন্ধুর সাথে জিয়াকে মিলাতে চান আপনারা জিয়াউর রহমান ছিলেন একজন চাকুরীজীবী, একজন চাকুরীজীবি মুক্তিযোদ্ধা তিনি ছিলেন একজন বিপদগামী সৈনিক মুলতঃ জিয়াউর রহমান ছিলেন আইএসের এজেন্ট সেদিনের হত্যার মুল নায়ক ছিল জিয়া জিয়া নাকি যুদ্ধ করেছিলে জিয়া কোথায় যুদ্ধ করেছিলেন, তার কোন প্রমান দিতে পারেননি আমি একজন মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে আমার একটি তালিকা রয়েছে আপনার তো তালিকা দেখতে শুনতে